আপনি বিষন্নতায় ভুগছেন

আপনাকে প্রথমেই ধন্যবাদ আমাদের সঙ্গে যোগাযোগ করার জন্য। আপনার সমস্যাটির কথা ভালো করে পড়লাম। তবে এটা যে একটা মানসিক সমস্যা এ বিষয়ে আপনার কোনো সন্দেহ থাকা উচিত নয়। কার্ডিওলজিস্ট সাহেব যেসব ওষুধ দিয়েছেন, সেসবও মানসিক রোগেরই ওষুধ। আপনি বিষন্নতায় ভুগছেন। শারীরিক সমস্যাগুলোও এসব কারণেই হয়।

আপনার কাছ থেকে একটা বিষয় অবশ্য জানা দরকার ছিলো, আপনার ঘুম কেমন হয়। বেশি, না কম?
যাহোক, আপনি আপাতত আগের ওষুধ বন্ধ করে দিয়ে- ট্যাবলেট- মিটাপ্রেক্স ১৫ মিগ্রা. রাতে একটা করে খেতে শুরু করেন। সাথে এসিডিটির জন্য যে ওষুধটি দিয়েছেন সেটাও খেতে পারেন।

আগের ওষুধ, বিশেষ করে রিভোট্রিল বন্ধ করার ফলে ঘুমের সমস্যা হতে পারে। যদি ঘুমের সমস্যা হয় তবে
ট্যাবলেট রিভোট্রিল .৫ মিগ্রা. রাতে একটা করে খেতে পারেন।

সমস্যা হলো দুই থেকে তিন সপ্তাহ পর আবার আপনার ওষুধ বা ওষুধের মাত্রা নতুন করে ঠিক করা উচিত। তবে, হুট করে কারো কথায় আপনি ওষুধ বন্ধ করে দিবেন না। ওষুধ হয়তো বেশকিছু দিন খেতে হতে পারে। ভলো করে চিকিৎসা করাতে পারলে এ সমস্যা আপনার সম্পূর্ণ দূর হয়ে যাবে। মৃত্যু চিন্তাও আপনার আর থাকবে না।

ডা. সালাহ্উদ্দিন কাউসার বিপ্লব


***দৃষ্টি আকর্ষন মনেরখবর.কম এর প্রশ্ন-উত্তর বিভাগে, মানসিক স্বাস্থ্য, যৌন স্বাস্থ্য, মাদকাসক্তি সহ মন সংক্রান্ত বিভিন্ন বিষয়ে বিশেষজ্ঞ পরামর্শ দেয়া হচ্ছে। আপনাদের কোন জানার থাকলে বা প্রশ্ন থাকলে বা বিশেষজ্ঞ পরামর্শ দরকার হলে info@www.monerkhabor.com এই ইমেলের মাধ্যমে প্রশ্ন পাঠাতে পারেন।***

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here