অবসেসিভ কম্পালসিভ ডিসঅর্ডার বা ওসিডি-এর উপসর্গ

0
159

Obsessive-Compulsive Disorder (OCD) নামক রোগের রোগীদের নানা রকম উপসর্গ দেখা যেতে পারে। এখানে সবচেয়ে বেশি দেখা যায় এবং সহজভাবে বলা যায় ও চেনা যায় সেগুলোর প্রতি দৃষ্টিপাত করা গেলো।
এই রোগের রোগীদের শুধু অবসেসান থাকতে পারে, শুধু কম্পালসান থাকতে পারে, আবার দুটি একসঙ্গে থাকতে পারে।
খুব সাধারণভাবে অবসেসান হল কোনো একটি চিন্তা, ছবি বা তাড়না মনের মধ্যে আসে; যেটা রোগীরা ফালতু বলে মনে করেন, মন থেকে বের করার চেষ্টা করেন এবং এই চিন্তাটা রোগীকে কষ্ট দেয়।
সাধারণভাবে কম্পালসান হল রোগী মনের ওই ফালতু চিন্তাটা বাদ দেওয়ার জন্য যে কাজ করা হয়। অনেক সময় অবসেসান ছাড়াও কম্পালসান থাকতে পারে।
অবসেসান বিভিন্ন রূপে আসতে পারে। কেউ একই কাজ বারবার করেন, কারো একই চিন্তা বারবার আসে, কারো মনে বিভিন্ন তাড়না আসতে পারে, কারো মনে বারবার অনিশ্চয়তা হিসেবে দেখা দেয়।
অবসেসানগুলো বিভিন্ন বিষয়বস্তুর সাথে যুক্ত থাকতে পারে। কারো থাকে ধর্ম নিয়ে, কারো থাকে পরিস্কার পরিচ্ছন্নতা নিয়ে, কারো থাকে অন্য কারো বা নিজের ক্ষতি নিয়ে, কারো যৌন বিষয় নিয়ে, কারো শরীরে রোগ নিয়ে, কারো জিনিস গোছানো নিয়ে, কারো শরীরের গঠন নিয়ে, কারো কারো ক্ষেত্রে ভয় হিসেবেও দেখা যায়।
সাধারণভাবে কম্পালসান কয়েকটি ভাবে দেখা যায়। যেমন- যাদের মনে অনিশ্চয়তা থাকে তারা বারবার চেক করেন, দরজা ঠিক মত লাগিয়েছেন কিনা, টাকা বারবার গুনেন; যারা পরিষ্কার পরিচ্ছন্নতা নিয়ে ভাবেন তারা অনেকক্ষণ ধরে ধোয়া মোছা নিয়ে সময় ব্যয় করেন, জিনিসপত্র অন্য কেউ ধরলে তা মেনে নিতে পারেন না, নিজের জায়গা, পোশাক ভাগাভাগি করতে পারেন না ইত্যাদি রুপে দেখা যেতে পারে।
অবসেসিভ কম্পালসিভ ডিসঅর্ডার অনেক সময় অনেক বিচিত্র উপসর্গ নিয়ে দেখা দিতে পারে। অনেকে অন্য রোগের অংশ হিসেবে অবসেসিভ কম্পালসিভ ডিসঅর্ডার নিয়ে দেখা দিতে পারেন।অনেকের ব্যক্তিত্বের অংশ বা রোগ হিসাবে থাকতে পারে। খুব সাধারণভাবে উপরের উপসর্গ দেখা দিলে একজন মনোরোগ বিশেষজ্ঞের সাথে কথা বলা দরকার।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here