যেকোনো সময় যে কারো সঙ্গে অনাকাঙ্ক্ষিত ঘটনা ঘটে যেতে পারে। হঠাৎ অনাকাঙ্খিত কোনো ঘটনায় শারীরিক বা মানসিকভাবে ক্ষতিগ্রস্থ হতে পারে যে কেউ। এমন অনাকাঙ্খিত ঘটনা থেকে বাঁচতে হলে সতর্কতার বিকল্প নেই।

যথেষ্ঠ সর্তকতা সত্ত্বেও নিয়তির খেলায় কোনো অপ্রত্যাশিত ঘটনা ঘটলে তাতে কিছুই করার নেই। তবে সতর্কতা আপনাকে অনেক দূর্ঘটনা থেকে বাঁচিয়ে দিতে পারে। কমিয়ে দিতে পারে ক্ষতিকর প্রভাব।

এজন্য চলতে ফিরতে সবসময় সর্তকতা অবলম্বন করতে হবে। তবে এই সতর্কতা শিশুদের ক্ষেত্রে একটু বেশিই দরকার। শিশুদের সব সময় চোখে চোখে রাখতে হবে। নতুবা শিশুর ওপর নেমে আসতে পারে যেকোনো ধরণের বিপদ।

চেয়ার, টেবিলৎ বা খাট থেকে পড়ে গিয়ে কিংবা খেলতে গিয়ে, লাফালাফি করতে গিয়ে যেকোনো সময় শিশুরা মাথায় আঘাত পেতে পারে। যদি কখনো এমন অনাকাঙ্খিত ঘটনা ঘটেই যায় তখন কী করবেন? শিশুর শুশ্রুষায় কী কী পদক্ষেপ নিতে হবে তা আগে থেকে জেনে রাখা খুবই জরুরী। এসব বিষয়ে জানাচ্ছেন, বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিকেল বিশ্ববিদ্যালয়ের নিউরোসার্জারি বিভাগের অধ্যাপক ডা. হারাধন দেবনাথ। চলুন জেনে নেয়া যাক:-

আঘাতে কী হতে পারে:

মাথা ফুলে যেতে পারে।
কেটে রক্ত বের হতে পারে।
বেশি আঘাতে মাথার খুলি ভেঙে যেতে পারে।
এমনকি খুলির ভেতরে মস্তিষ্ক ফুলে যেতে পারে।

উপসর্গ:

শিশু বেশি কাঁদবে।
নিশ্বাস নিতে কষ্ট হতে পারে।
কথা বলতে বা দেখতে অসুবিধা হতে পারে।
নাক, কান, মুখ দিয়ে রক্ত বের হতে পারে।
বমি ও খিঁচুনি হতে পারে।
এমনকি অচেতন হয়ে যেতে পারে।

কী করবেন?

প্রথমেই শিশুকে শুইয়ে দিয়ে মাথায় আঘাতের বা ফোলা স্থানে আইসপ্যাক (বরফ) লাগাতে পারেন। চামড়া কেটে রক্ত বের হতে থাকলে রক্তপাত বন্ধে কাটা স্থান চেপে ধরে রাখতে হবে।

উল্লিখিত উপসর্গগুলো দেখা দিলে নিউরোসার্জনের পরামর্শ নিয়ে মাথার সিটি স্ক্যান করাতে হবে।

কখন হাসপাতালে নেবেন:

শিশু অজ্ঞান হয়ে গেলে।
ঘণ্টাখানেকের মধ্যে বমি করলে।
খিঁচুনি হলে।
রক্তপাত বন্ধ না হলে।

সাবধানতা :

মাথায় আঘাত গুরুতর না হলেও পরবর্তী ২৪ ঘণ্টা শিশুর ওপরে নজর রাখুন। শিশুর কান্না থামানোর জন্য কখনো জোরে ঝাঁকাবেন না। সাইকেল চালানো, স্কেটিং বা ক্রিকেট খেলার সময় মাথায় হেলমেট পরানোর অভ্যাস করুন।

সংকলন ও সম্পাদনা : শাহনূর শাহীন

স্বজনহারাদের জন্য মানসিক স্বাস্থ্য পেতে দেখুন: কথা বলো কথা বলি
করোনা বিষয়ে সর্বশেষ তথ্য ও নির্দেশনা পেতে দেখুন: করোনা ইনফো
মানসিক স্বাস্থ্য বিষয়ক মনের খবর এর ভিডিও দেখুন: সুস্থ থাকুন মনে প্রাণে 

“মনের খবর” ম্যাগাজিন পেতে কল করুন ০১৮ ৬৫ ৪৬ ৬৫ ৯৪

/এসএস

শেয়ার করুন, সাথে থাকুন। সুস্থ থাকুন মনে প্রাণে।
       
 

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here