সিজোফ্রেনিয়া : ভূতের আঁচড় নাকি মানসিক রোগ?

0
29

হঠাৎ করে মনে হলো যে, কেউ এমন কিছু শুনতে পারছেন যার পেছনে কোনো মানুষ না অন্য কোনো প্রাণী দৃশ্যমান নেই। কিংবা ব্যক্তির মনে হলো তাকে কেউ থাপ্পর মেরে দিলো নিজের অজ্ঞাতসরে। অথবা একা একাই বিড়বিড় করে বলছে কিছু যার সবটা বোধগম্য হচ্ছে না সামনে থাকা অন্য কারো।

এরকম কেউ করলে আমরা সাধারণত মনে করে থাকি ভূত-প্রেত বা শয়তান আঁচড় করেছে। বিশেষ করে গ্রামাঞ্চলে এ বিষয়ে মানুষের ধারণা খুবই প্রবল। মেডিকেল এ বিষয়টাকে মনোরোগ হিসেবে চিহ্নিত করে। চিকিৎসা বিজ্ঞানের ভাষায় এ রোগটার নাম স্কিকৎজোফ্রেনিয়া বা সিজোফ্রেনিয়া। বিশ্বব্যাপী ২৪ মে সিজোফ্রেনিয়া দিবস পালন করা হয়।

এটা এমন একটা মনোব্যাধি যেটা হলে মানুষ বুঝতে পারে না কোনটা বাস্তব আর কোনটা তার কল্পনা। ব্যক্তি কল্পনা আর বাস্তবতাকে চিহ্নিত করার শক্তি হারিয়ে ফেলে। অনেকে এটাকে হ্যালুসিনেশন হিসেবে সাব্যস্ত করে।

এই রোগে আক্রান্ত ব্যক্তি পরিবেশ-সমাজ থেকে অনেকটাই বিচ্ছিন্ন হয়ে পড়ে। স্কুল-কলেজ, অফিসে, পারিবারিক সম্পর্কে স্বাভাবিক চলাফেরা তার জন্য অসম্ভব হয়ে পড়ে। সব সময় সন্দিহান থাকে। এমনকি নিজেই নিজেকে নিয়ে সন্দেহে থাকে। অনেক সময় নিজেই নিজেকে চিনতে পারে না। মানসিকভাবে নিরানন্দ জেঁকে বসে। কেউ কেউ আবার নিজেদের আবেগ প্রকাশ করতে পারে না বা নিয়ন্ত্রণও করতে পারেন না। বিশ্বের এক শতাংশের কিছু কম মানুষ এ রোগটিতে ভুগছেন।

এরকম কোনো রোগীর মেডিকেল টার্ম পর্যালোচনা করলে দেখা যায় কিছু কিছু রোগীর বিষয়ে চিকিৎসা বিজ্ঞান অমীমাংসিত থাকে। এই সূত্র ধরে অনেকেই মেডিকেল কন্ডিশনকে অস্বীকার করে এবং এটাকে ভূত-প্রেত বা শয়তান আঁচড় বলেই দৃঢ়তা প্রকাশ করে। অন্যদিকে মেডিকেল সাইন্স পুরো বিষয়টাকে মনোরোগ সাব্যস্ত করে ভূত-প্রেতকে অস্বীকার করে যদিও অধিকাংশ রোগীর সুস্থতার নিশ্চয়তা বা পুরোপুরি ব্যাখ্যা দেয়া সম্ভব হয় না। তাহলে সিদ্ধান্ত কী হবে? কোনটা ঠিক? চিকিৎসা বিজ্ঞান নাকি ভূত-প্রেত ধারণা। নাকি দুটোই ঠিক।

বিজ্ঞান কী বলে এ ব্যাপারে? গ্রামীণ ধারণার কোনো অস্তিত্ব কি আদৌ নেই নাকি বিজ্ঞানের ব্যাখ্যা ভুল? কিংবা এ বিষয়ে বিজ্ঞান আসলেই পরিরপূর্ণ কোনো ব্যাখ্যা দিতে পেরেছে কি?

প্রিয় পাঠক সিদ্ধান্ত আপনার। আমরা এখানে চিকিৎসা বিজ্ঞানের সর্বশেষ ধারণা আলোচনা করবো। এখান থেকে বাকীটা মিলিয়ে নেয়া আপনার দায়িত্ব। চলুন জেনে নেয়া যাক। বিস্তারিত এই লিংকে। ক্লিক করুন।

শাহনূর শাহীন, লেখক ও সাংবাদিক

স্বজনহারাদের জন্য মানসিক স্বাস্থ্য পেতে দেখুন: কথা বলো কথা বলি
করোনা বিষয়ে সর্বশেষ তথ্য ও নির্দেশনা পেতে দেখুন: করোনা ইনফো
মানসিক স্বাস্থ্য বিষয়ক মনের খবর এর ভিডিও দেখুন: সুস্থ থাকুন মনে প্রাণে 

“মনের খবর” ম্যাগাজিন পেতে কল করুন ০১৮ ৬৫ ৪৬ ৬৫ ৯৪

/এসএস

শেয়ার করুন, সাথে থাকুন। সুস্থ থাকুন মনে প্রাণে।
       
 

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here