মানসিক স্বাস্থ্যের জন্য সামাজিক পরিবেশ গুরুত্বপূর্ণ

0
312
মানসিক স্বাস্থ্যের জন্য সামাজিক পরিবেশ গুরুত্বপূর্ণ

মানসিক স্বাস্থ্য কথাটি শুনলেই আমাদের মাথায় প্রথমেই মানসিক রোগের ব্যাপারটি চলে আসে। কিন্তু মানসিক স্বাস্থ্য মানে শুধু মানসিক রোগ কিংবা মানসিক রোগের চিকিৎসা নয়। একজন মানুষ মানসিক ভাবে সুস্থ কিরা তা আমরা তিনটি প্রশ্নের মাধ্যমে বিবেচনা করতে পারি। সেগুলি হল: ১. তিনি নিজে সুস্থ বোধ করছেন কিনা ২. তিনি তার সামজিক সম্পর্কে ভালো আছেন কিনা অর্থাৎ তিনি অন্যদের নিয়ে ভালো আছেন কিনা ৩. তিনি তার পেশাগত দায়িত্ব সঠিকভাবে পালন করেত পারছেন কিনা কিংবা মনোনিবেশ করতে পারছেন কিনা।

যখন এই বিষয়গুলি ঠিক থাক তখন আমরা ব্যক্তিটিকে মানসিকভাবে সুস্থ বলবো। কিন্তু যখন এই বিষয়গুলি ঠিক থাকবে না তখন আমরা ব্যক্তিটি মানসিকভাবে স্বাভাবিক নেই বলে ধরে নিতে পারি। তবে মানসিকভাবে স্বাভাবিক না থাকা মানেই কিন্তু তিনি মানসিকভাবে অসুস্থ কিংবা তিনি মানসিক রোগী নন। মানসিক রোগ ব্যপারটি আরও তীব্র মাত্রার। মানসিক রোগ আমাদের এই আলোচনা প্রসঙ্গ নয়, আমরা আজ কথা বলছি মানসিক স্বাস্থ্য নিয়ে অর্থাৎ মানসিকভাবে ভালো থাকা নিয়ে।

ভালো থাকাটা অনেক কিছুর উপর নির্ভর করে, এটা শুধুমাত্র আমার ব্যক্তিগত চাওয়া পাওয়ার উপর নির্ভরশীল নয়। ব্যক্তিগত চাওয়া পাওয়া অবশ্যই গুরুত্বপূর্ণ কিন্তু  ভালো থাকাটা অন্য কিছুর উপরও নির্ভর করে। এবং সবচেয়ে গুরুত্বপূর্ণ হল আমার সমাজ কিভাবে চলছে; সমাজ যদি ভালো না থাকে তবে আমি বিচ্ছিন্নভাবে ভালো থাকতে পারি না। সামাজিক পরিবেশ আমাদের মনের উপর প্রত্যক্ষ এবং পরোক্ষ দুভাবেই প্রভাবে ফেলে। এখানে আমি কোভিড ১৯ এর একটি উদহারণ দিই-আমাদের দেশে কোভিড ১৯ শণাক্ত হওয়ার পর থেকে প্রথম দুই মাস কিন্তু মৃত্যুর সংখ্যা একদমই কম ছিল, কিন্তু তখন মানুষের মনে প্রচন্ড ভীতি কাজ করতো। তখন একজনের ভয় আরেকজনের মধ্যে সংক্রমিত হচ্ছিল। সেই তুলনায় এখন মৃত্যুর সংখ্যা এখন কিন্তু অনেক বেশি, তবে জীবনযাত্রা স্বাভাবিক এবং ভীতিও কমে গেছে। এর প্রধান কারণও কিন্তু সামাজিক প্রভাব। আমরা সামাজিকভাবে এখন করোনাকে ভয় করছি না, তাই ব্যক্তি ভীতিও কেটে গেছে।

একইভাবে আমার কর্মক্ষেত্র যদি আমার মানসিক স্বাস্থ্যের জন্য অনুকূল না হয়, আমরা পারিবারিক পরিবেশ, আমার চারপাশের পরিবেশ যদি আমার মানসিক স্বাস্থ্যের জন্য অনুকূল না হয়; তাহলে কিন্তু আমি ভালো থাকতে চাইলেও ভালো থাকা অসম্ভব। সুতরাং মানসিক স্বাস্থ্য সুরক্ষার জন্য আমাদেরকে এই সামাজিক দিকগুলির প্রতি বিশেষভাবে নজর দেওয়া উচিত।

আমরা ইদানিংকালে প্রায়শই বিভিন্ন পেশাগত দায়িত্ব পালনে অবহেলা কিংবা অন্যায়ের খবর পেয়ে থাকি। সম্প্রতি সিলেটে পুলিশি হেফাজতে একজনের মৃত্যুর অভিযোগ উঠেছে। এসব ঘটনা সামাজিক এবং পেশাগত পরিবেশ মানসিক স্বাস্থ্যের জন্য অনুকূল না থাকার জন্যই ঘটছে।

**  মানসিক স্বাস্থ্য দিবস উপলক্ষে মনের খবর টিভিতে প্রচারিত আলোচনা সভায় জাতীয় মানসিক স্বাথ্য ইনস্টিটিউট এর পরিচালক অধ্যাপক ডা. বিধান রঞ্জন রায় পোদ্দার এর বক্তব্যের একাংশের অনুলিখন।

করোনায় স্বজনহারাদের জন্য মানসিক স্বাস্থ্য পেতে দেখুন: কথা বলো কথা বলি
করোনা বিষয়ে সর্বশেষ তথ্য ও নির্দেশনা পেতে দেখুন: করোনা ইনফো
মানসিক স্বাস্থ্য বিষয়ক মনের খবর এর ভিডিও দেখুন: সুস্থ থাকুন মনে প্রাণে

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here