মন খারাপের নানান কারণ

0
156
মন খারাপের নানান কারণ
মানুষের মাঝে সাধারণ এই ধারণা প্রচলিত আছে যে একাকীত্ব এবং দুঃখ কষ্টের কারণেই শুধুমাত্র মন খারাপ হয়। কিন্তু গবেষণায় দেখা গেছে, বাস্তব জীবনে মন খারাপের পেছনে শুধু একাকীত্ব বা দুঃখ কষ্ট নয়, আরও অনেক অনেক কারণ কাজ করে।

ধরুন আপনি ব্যথিত এবং একই সাথে আপনি একা আছেন, একাই জীবন যাপন করছেন এবং আপনার মন খারাপ, আপনার কি মনে হয় আপনার কোন সঙ্গী নেই এবং একাকী জীবন যাপন করার কারণেই আপনার এই মন খারাপ? আপনার কি মনে হয় সঙ্গী খুঁজে নিলে, বিয়ে করে সাংসারিক জীবন যাপন করলে অথবা কাউকে অন্তত মনের কথা খুলে বলতে পারলেই আপনার এই মন খারাপ, একাকীত্ব সব কিছু দূর হয়ে যাবে? কারও কারও ক্ষেত্রে এটি হয়তো কাজে দেয়, কিন্তু অধিকাংশ সময়েই এমন প্রচেষ্টা সফল হয়না। কারণ সাধারণ নিয়ম হিসেবে কখনোই মন খারাপের পেছনে এমন কারণ বা এর সমাধানে এসব প্রচেষ্টাও সঠিক হয় না। তাই মন খারাপের পেছনে কি কি কারণ থাকতে পারে সেগুলো নিয়ে সঠিক ধারণা থাকা প্রয়োজন, যাতে এর সমাধান করে মানসিকভাবে সুস্থ থাকা যায়।

১) সামাজিক মাধ্যমঃ
আপনার যদি মনে হয় আপনি একাকী এবং পরিবার ও বন্ধুদের সাথে সম্পর্কে দূরত্ব তৈরি হয়েছে, বিশেষত মহামারীর এই দুঃসময়ে দাম্পত্য জীবনে ও পারিবারিক জীবনে নিজেকে অসুখী মনে হয়, তাহলে হতে পারে সামাজিক মাধ্যমে প্রচারিত বিভিন্ন নেতিবাচক সংবাদ আপনার মনের শান্তিকে নষ্ট করছে। সামাজিক মাধ্যমে সারাক্ষণ অস্বাভাবিক এই পরিস্থিতির খবর দেখে দেখে আমাদের মাঝে যেমন অস্থিরতা বাড়ছে তেমনি আমরা যে বাইরে যেতে পারছিনা, কারও সাথে মেলামেশা করতে পারছিনা সেটিও মনের মাঝে চাপ সৃষ্টি করছে। এতে আমাদের মানসিক শান্তি নষ্ট হচ্ছে।

২) বৈবাহিক সম্পর্ক স্থাপনঃ
অনেকেই নিজের মনের শান্তির জন্য বিয়ে করাকে উপায় হিসেবে বেছে নেন। বই, সিনেমার গল্পের মত বিয়ে করাকে কোন ম্যাজিক হিসেবে ভেবে নেয় এবং ভাবে বিয়ে করলেই বুঝি সব মানসিক উৎকণ্ঠা দূর হয়ে যাবে, একাকীত্ব দূর হবে এবং সুখে শান্তিতে জীবন যাপন করতে পারবে। কিন্তু বাস্তব চিত্র মোটেও তেমনটা হয়না। বিয়ের আমেজ কাটতেই এই ধারণা ভুল প্রমাণিত হয় এবং অতিরিক্ত দায়িত্বের ভার মনকে আরও অবসন্ন করে তোলে। এতে জীবন আরও কঠিন হয়ে ওঠে যা অনেক ক্ষেত্রেই বিচ্ছেদে গিয়ে শেষ হয়।

৩) কাছের মানুষের পাশে থেকেও একাকী থাকাঃ
অনেকে ভাবেন একা থাকা মানেই একাকীত্ব এবং একাকীত্ব থেকেই মনঃকষ্ট সৃষ্টি হওয়া। কিন্তু একা থাকা এবং একাকীত্ব এক বিষয় নয়। অনেক সময় পরিবার, বন্ধুবান্ধবদের সাথে থেকেও অনেকের মাঝে একাকীত্বের অনুভূতি এবং মানসিক পীড়ার সৃষ্টি হতে পারে।

৪) মিশ্র কারণঃ
প্রতিটি মানুষ এবং মানুষের মন প্রকৃতপক্ষেই বেশ জটিল এবং একে অপরের থেকে আলাদা আলাদা। তাই সব সময় সব কিছুকে যুক্তি দিয়ে বিচার করা যেমন কঠিন, তেমনি সাধারণ কোন নিয়মে বাঁধার প্রচেষ্টা করাও বৃথা। মন খারাপের কারণ গুলোও ঠিক তেমনিই হতে পারে প্রতিটা মানুষ অনুসারে ভিন্ন ভিন্ন।

সুস্থ ও সুন্দর ভাবে জীবন যাপন করতে মন খারাপের কারণ বুঝে তার সঠিক নিবারণ করা প্রয়োজন। নাহলে এই ছোট ছোট মন খারাপ ধীরে ধীরে বড় বড় মানসিক অসন্তোষ এবং সমস্যার সৃষ্টি করতে পারে। যা মানুষকে আত্মহত্যার মত চরম পরিণতির দিকেও ঠেলে দিতে পারে।

স্বজনহারাদের জন্য মানসিক স্বাস্থ্য পেতে দেখুন: কথা বলো কথা বলি
করোনা বিষয়ে সর্বশেষ তথ্য ও নির্দেশনা পেতে দেখুন: করোনা ইনফো
মানসিক স্বাস্থ্য বিষয়ক মনের খবর এর ভিডিও দেখুন: সুস্থ থাকুন মনে প্রাণে

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here