হিস্টিরিয়া একটি মানসিক রোগ

1
6

হিস্টিরিয়া হচ্ছে এমন একটি মানসিক অবস্থা যেখানে ব্যক্তির মধ্যে দুর্দমনীয় ভয় ও অতিরিক্ত আবেগ লক্ষ্য করা যায়। যাদের হিস্টিরিয়া রয়েছে তারা সাধারণত কোনো না কোনো ফোবিয়ায় আক্রান্ত, অনিয়মতান্ত্রিক জীবন-যাপন ও মানসিক অবসাদগ্রস্ত থাকেন। নারী-পুরুষ উভয়েরই হিস্টিরিয়া হতে পারে। তবে ১৪ থেকে ২০ বছর বয়সী নারীদের মধ্যে হরমোনাল ইমব্যালেন্স ও পিরিয়ডিক্যাল কারণে এর আধিক্য দেখা যায়।
যাদের হিস্টিরিয়া রয়েছে তারা নিজের কাজ ও আচরণের ওপর খুব একটা নিয়ন্ত্রণ করতে পারেন না বা নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে ফেলেন। তাদের মধ্যে সচেতনতাজ্ঞান লোপ পায় ও মানসিক ক্ষোভ কাজ করে। ব্যক্তির নিজের মধ্যে অবদমিত দ্বন্দ্ব তার আচরণে প্রভাব ফেলে। যদিও হিস্টিরিয়ার মূল কারণ অ্যাংজাইটি, কিন্তু আরও অনেক কারণে হিস্টিরিয়া হতে পারে।
হিস্টিরিয়া কেন হয়?
হিস্টিরিয়ার বিভিন্ন কারণগুলো হচ্ছে –
•    স্ট্রেস
•    যৌন নিপীড়ন
•    অলসতা
•    পরিবারের কারও থেকে থাকলে
•    নার্ভাসনেস
•    আবেগের ত্রুটিপূর্ণ চর্চা
•    মেন্টাল স্ট্রেইন
•    ভয়
•    দুশ্চিন্তা
•    ডিপ্রেশন
•    ট্রুমাটিজম
•    হস্তমৈথুন
•    দীর্ঘকালীন অসুস্থতা
•    ব্রেন টিউমার
•    স্মৃতিভ্রংশতা বা ডিমেনশিয়া ইত্যাদি
হিস্টিরিয়ার লক্ষণ
•    অঙ্গপ্রত্যঙ্গ ভারী লাগা
•    শরীর আড়ষ্ট হয়ে যাওয়া ও মাংসপেশি শক্ত হয়ে যাওয়া
•    দাঁত লেগে যাওয়া
•    পেটের সংকোচন ও শক্ত অনুভূতি
•    ক্রমাগত দীর্ঘশ্বাস ও নিঃশ্বাস নিতে অসুবিধা
•    ঘাড়ের অংশ ফুলে যাওয়া
•    বুক ধড়ফড় করা
•    মাথাব্যথা ও দুর্বলতা
•    চেতনাহ্রাস
•    সহিংস মনোভাব ও অস্থিতিশীল হৃৎস্পন্দন
•    মানসিক অস্থিরতা ও ইচ্ছাশক্তি হ্রাস
হিস্টিরিয়া মোকাবিলায় অভিজ্ঞ ডাক্তারের পরামর্শ নেওয়ার পাশাপাশি কিছু ঘরোয়া ট্রিটমেন্ট নিতে পারেন।
ঘরোয়া প্রতিকার
•    যাদের হিস্টিরিয়া রয়েছে তাদের ডেইলি ডায়েটের দিকে নজর দিতে হবে। তিনবেলা খাবারেই আপেল, আঙুর, কমলা, আনারস, পেঁপে ইত্যাদি ফল রাখুন।
•    টানা এক মাসের জন্য প্রচুর পরিমাণে দুধ ও দুগ্ধজাত খাবার খান।
•    একমাস সকালে খালি পেটে এক কাপ লেটুসপাতার রস ও এক চা চামচ আমলকির রস খান।
•    যাদের হিস্টিরিয়া রয়েছে তারা প্রতিদিন এক টেবিল চামচ করে মধু খান।
•    প্রতিদিন পর্যাপ্ত ঘুম ও ব্যায়াম হিস্টিরিয়া সারিয়ে তুলতে সহায়ক।

1 COMMENT

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here