মানসিক স্বাস্থ্যের সবকিছু ENGLISH

Home করোনায় মনের সুরক্ষা টিপস্ কোভিড ১৯: বাজার থেকে আনা পণ্য কতটা নিরাপদ?

কোভিড ১৯: বাজার থেকে আনা পণ্য কতটা নিরাপদ?

  • সারা বিশ্বব্যাপী চলছে করোনা ভাইরাসের প্রাদুর্ভাব। আর এ ভাইরাস মোকাবেলায় প্রতিদিনই আমাদের কোন না কোন চ্যালেঞ্জের সম্মুখীন হতে হচ্ছে। যার কারণে বিশ্বের বেশিরভাগ দেশেই চলছে লকডাউন। আর এ ভাইরাস প্রতিরোধের প্রধান উপায় হচ্ছে বাসায় অবস্থান করা, জনসমাগমে না যাওয়া।

কারণ এ ভাইরাস বহন করা এক ব্যক্তি থেকে আরেক জনকে আক্রান্ত করে বা আক্রান্ত ব্যক্তির ধরা জিনিসপত্র থেকেও ছড়ায়। কিন্তু নিত্য প্রয়োজনীয় জিনিসের জন্য কখনো না কখনো কোন সময় বাসা থেকে বের হতেই হচ্ছে। বাজার থেকে আনতে হচ্ছে প্রয়োজনীয় জিনিস। কিন্তু বাজার থেকে আানা জিনিসগুলোতে যে জীবানু থাকবে না, এমনটা তো নয়। সেখানেও একটা উদ্বেগ বা আশংকা বিষয় রয়েছে।
এ ভাইরাস ছড়ানোর একটা বড় উৎস হতে পারে বাজার। বাজার থেকে আমরা যেসব জিনিস কিনছি, তা আমরা নাড়াচাড়া করে কেনার আগে অনেক জনই হয়তো নাড়াচাড়া করেছে। যে টাকা দিচ্ছি বা নিচ্ছি সেসব টাকা আরো কয়েকজন এর কাছ থেকে ঘুরে এসেছে। আমরা ব্যাংক থেকে টাকা তুলে থাকি, এটিএম মেশিন থেকে টাকা তুলে থাকি সেখানেও মেশিনের বোতামে অনেক জনেরই হাত পড়েছে। আবার বাজারে মানুষের ধারে কাছে দাঁড়ানো, এসব প্রতিটি ক্ষেত্র থেকেই যে কেউ এই ভাইরাসে সংক্রমিত হতে পারে।
তাই এসব জায়গায় যাওয়ার আগে, আবার ঐসব জায়গা থেকে ফিরে এসে সর্বোচ্চ সাবধানতা অবলম্বন করা উচিত। নিত্য প্রয়োজনীয় জিনিস, কাঁচা শাকসবজি, মাছ-মাংস,ফলমূলের ক্ষেত্রে ও ঝুঁকি থাকে। এগুলো সব কিছু ভালো করে ধুয়ে ব্যবহার করা উত্তম। আর প্লাস্টিকের প্যাকে, টিন বা কাঁচের পাত্রে জিনিস কিনে আনলে তা ৭২ ঘন্টা না ছুঁয়ে সরিয়ে রাখা অথবা জীবানুমুক্ত করার তরল পদার্থ দিয়ে মুছে নিয়ে ব্যবহার করতে হবে।
অনেক সময় আমরা বাজারে লোকের ভিড় এড়িয়ে চলার জন্য অনলাইন শপগুলো থেকে নিত্য প্রয়োজনীয় জিনিস, খাদ্য সামগ্রী নিয়ে থাকি, এক্ষেত্রে ও কিছু না কিছু ঝুঁকি থেকে যায়। অনলাইন শপ থেকে যারা ডেলভারি দিয়ে যায়, তাদের মাধ্যমে, তাদের দেয়া ব্যাগ বা বাক্স থেকে সংক্রমিত হওয়ার ঝুঁকি থাকে।
এসব সব কিছুই ভাবার বিষয়। আর এসব সব কিছু ধরা বা ছোঁয়ার আগে সর্বোচ্চ সাবধানতা অবলম্বন করা উচিত। বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা থেকে শুরু থেকেই খাবারের জিনিসের উপর ও নিয়ম কানুন মেনে চলার ব্যাপারে সর্তকতা অবলম্বন করে চলার নির্দেশ দিয়ে আসছে। প্রতিটি কাঁচা জিনিস রান্নার আগে ভালোমতো ধুয়ে, ভালোমতো সিদ্ধ করে রান্না করে খাওয়ার কথা বলে আসছে। ভিটামিন -সি জাতীয় খাবারের কথা বলা হচ্ছে। এছাড়াও সব রকম পুষ্টিকর খাবার রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা বৃদ্ধি করে।
সুতরাং সকলের সচেতনতাই পারে এই ভাইরাসের সাথে মোকাবেলা করতে। আর এজন্য প্রয়োজনীয় সর্তকতা মেনে চলাই সর্বোচ্চ উত্তম।
লিখেছেন: সৈয়দা মুমতাহিনাহ সোনিয়া

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

আমাদের সাথেই থাকুন

87,455FansLike
55FollowersFollow
62FollowersFollow
250SubscribersSubscribe

Most Popular

যুক্তরাজ্যে মানসিক সমস্যায় ভুগছেন ৮৬ ভাগ নারী

যুক্তরাজ্য ৪ দিন ব্যাপী নারীদের মানসিক স্বাস্থ্যের উপর একটি ক্যাম্পেইন পরিচালনা করেছে। এতে দেখা যাচ্ছে ২০১৭ থেকে ২০১৯ সালের তুলনায় শতকরা ৪৯ ভাগ নারীদের...

সন্তানের আচার আচরণ কি আপনাকে চিন্তায় ফেলছে?

অনেক সময়ই অভিভাবকরা নিজেদের সন্তানের জন্য সময় বের করে তাদের দুর্ব্যবহারের জন্য তাদেরকে পরামর্শ দেওয়ার চেষ্টা করেন – তারা রাগ দেখাতে শুরু করে, কখনও...

আচরণগত আসক্তি ও এর চিকিৎসা

ফেসবুক, সেলফি, ইন্টারনেট, শপিং, খেলায় বাজি ধরা আমাদের সামাজিক জীবনে আজ খুবই পরিচিত অনুষঙ্গ। কিছু মানুষ ব্যস্ত মোবাইলে, কেউ বা কেনাকাটায় আবার কেউ বা...

আত্মবিশ্বাস বাড়লে বিষণ্ণতা কমে

আত্মবিশ্বাস বৃদ্ধি করুন, বিষণ্ণতা সহ সব মানসিক প্রতিকূল অবস্থা মোকাবেলা করুন। সম্প্রতি কিছু গবেষণায় দেখা গেছে যে, মানুষের মধ্যে আত্মবিশ্বাস বৃদ্ধি অত্যন্ত জরুরী কারণ আত্মবিশ্বাস...

প্রিন্ট পিডিএফ পেতে - ক্লিক করুন